কম্বল দেয়ার প্রলোভনে ধর্ষণ- পৌর কাউন্সিলর গ্রেফতার

গ্লোবাল ডেস্কঃ- কম্বল দেয়ার প্রলোভনে ডেকে নিয়ে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে হিন্দু পরিবারের এক কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে পাবনা বেড়া পৌরসভার এক বরখাস্তকৃত কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে। এ ঘটনায় মামলা দায়েরের পর ধর্ষণকারী বেড়া পৌরসভার ৩নং ওয়ার্ডের বরখাস্তকৃত কাউন্সিলর আব্দুল রাজ্জাক (৪০) কে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। সোমবার মধ্যরাতে তাকে গ্রেপ্তারের পর মঙ্গলবার জেলহাজতে পাঠানো হয়। মামলা সূত্রে জানা গেছে, সোমবার (২১ জানুয়ারি) সকালে পৌরসভার বনগ্রাম দক্ষিণ মহল্লার হাজী মো. খোয়াজ মোল্লার ছেলে ৩নং ওয়ার্ডের বরখাস্তকৃত কাউন্সিলর আব্দুল রাজ্জাক ১২ বছরের এক কিশোরীকে কম্বল দেয়ার প্রলোভন দিয়ে ডেকে নিয়ে যায়। এ সময় একই মহল্লার কাসেমের ছেলে আলমের বাড়িতে একটি পরিত্যক্ত ঘরের মধ্যে অস্ত্রের ভয় দেখিয়ে ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করে ফেলে রেখে পালিয়ে যায়। পরে মেয়েটি বাড়ি ফিরে তার মা ও বোনকে ঘটনাটি জানায়। এ ঘটনায় সোমবার রাত ৮টার দিকে মেয়েটির মা বাদী হয়ে বেড়া মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে বেড়া থানা পুলিশ মধ্যরাতে অভিযান চালিয়ে ধর্ষণকারী আব্দুর রাজ্জাককে তার বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে একটি ধারালো ছোরা ও ধর্ষণের কিছু আলামত উদ্ধার করা হয়েছে। বেড়া মডেল থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. শাহীদ মাহমুদ খান বলেন, ধর্ষণের অভিযোগ পাওয়ার পরই পুলিশ বিষয়টি আমলে নেয় এবং আসামি আব্দুল রাজ্জাককে গ্রেফতার করে। মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য মঙ্গলবার সকালে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়।

ওসি আরো জানান, গ্রেফতারকৃত রাজ্জাকের বিরুদ্ধে বেড়া থানায় দু’টি ধর্ষণ মামলা ও দু’টি মাদক আইনে মামলা রয়েছে। মঙ্গলবার তাকে আদালতের মাধ্যমে পাবনা জেলহাজতে পাঠানো হয়।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :409 বার!

JS security