জুড়ীতে মৃত্যুর ৪৬দিন পর কবর থেকে লাশ উত্তোলন

জুড়ী প্রতিনিধি :- মৌলভীবাজারের জুড়ীতে মৃত্যুর ৪৬দিন পর আদালতের নির্দেশে ময়নাতদন্তের জন্য কবর থেকে সিদ্দিক মিয়া ড্রাইভার (৬৫)-এর লাশ উত্তোলন করা হয়েছে। 

মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় উপজেলার জায়ফরনগর ইউনিয়নের মনতৈল (বজিটিলা) গ্রামের কবরস্থান থেকে লাশ উত্তোলন করে মৌলভীবাজার ২৫০শয্যা হাসপাতালের মর্গে নেয়া হয়।
নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও জুড়ী উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) নুসরাত লায়লা নীরার সার্বিক তত্ত্বাবধানে লাশ উত্তোলন কালে সহকারী পুলিশ সুপার হুমায়ূন কবির, জুড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) আমিনুল ইসলাম, জায়ফরনগর ইউপি চেয়ারম্যান মাছুম রেজাসহ সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। এ

ছাড়া লাশ উত্তোলন দৃশ্য দেখার জন্য স্থানীয় শতশত লোক সেখানে ভিড় জমান। এসময় সাংবাদিকদের নিকট সিদ্দিক মিয়া ড্রাইভারের মৃত্যুর সঠিক রহস্য উদঘাটন ও ন্যায় বিচার দাবি করেন স্থানীয়রা।

উল্লেখ্য, মৌলভীবাজারের জুড়ী উপজেলার জায়ফরনগর ইউনিয়নের মনতৈল গ্রামের বাসিন্দা সিদ্দিক মিয়া ড্রাইভার (৬৫) গত ১০ অক্টোবর রাত সাড়ে ১১টায় প্রথম সংসারের পুত্র জামাল মিয়ার ঘরে মারা যান। এ মৃত্যুকে পরিকল্পিত হত্যা উল্লেখ করে সিদ্দিক মিয়ার দ্বিতীয় স্ত্রী জাহানারা বেগম (৫০) গত ২১ অক্টোবর সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ৫নং আমল আদালত, মৌলভীবাজার-এ একটি হত্যা মামলা (পিটিশন নং- ৫৬৭/২০১৯ইং, জুড়ী, ধারা-৩০২/৩৪ দ: বি:) করেন। মামলায় সিদ্দিক মিয়ার পুত্র জামাল মিয়া (৪২) ও সিদ্দিক মিয়ার প্রথম স্ত্রী জোহরা বেগমকে (৫৫) বিবাদী করা হয়। 

আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে এ বিষয়ে প্রতিবেদন চেয়ে জুড়ী থানায় প্রেরণ করেন। পরে লাশ উত্তোলনের জন্য গত বৃহস্পতিবার আদালত আদেশ দেন।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :71 বার!

error: Content is protected !!
JS security