দিরাইয়ের ট্রিপল মার্ডারের ১৪জন অভিযুক্তকে খালাস দিয়ে সি,আই,ডি’র চার্জশিট, আদালতে বাতিল

স্টাফ রিপোর্টার:- দিরাই বহুল আলোচিত ট্রিপল হত্যা মামলার সিআইডি’ শীর্ষ আসামী সহ ১৪জন অভিযুক্ত কে বাদ দিয়ে আদালতে দাখিল কৃত চার্জশিট দুইদিন শুনানি শেষে খারিজ করে মামলার বাদির নারাজি আবেদন মঞ্জুর করেছেন সুনামগঞ্জ এর বিজ্ঞ আদালত। খবর নিশ্চিত কতেছেন মামলার বাদি হাতিয়া গ্রামের একরার হোসেন ও বাদি পক্ষের আইনজীবী এড.মাসুক আলম। আলোচিত ৩জন নিরিহ লোক হত্যার মামলা ডিবিতে স্থানান্তরের প্রায় বছর খানেক পর ব্যাপক তদন্ত করে এপ্রিলের শেষার্ধে মূল অভিযুক্ত শীর্ষ আসামি দিরাই পৌরমেয়র মোশাররফ মিয়া, দিরাই উপজেলা চেয়ারম্যান হাফিজুর রহমান তালুকদার, দিরাই উপজেলাই আওয়ামীলীগ সেক্রেটারি প্রদীপ রায় ও মেয়র পুত্র ছাত্রলীগ নেতা উজ্জ্বল মিয়া এবং যুগান্তর দিরাই প্রতিনিধি ও প্রেসক্লাব সেক্রেটারি জিয়াউর রহমান লিটন সহ ১৪ জন আসামীরকে হত্যার সাথে সংশ্লিষ্টতা না পাওয়ায় তাদেরকে খালাছ দিয়ে চার্জশীট দাখিল করে আদালতে। মামলার বাদি যুবলীগ নেতা একরার হোসেন ১৫ এপ্রিল সিআইডির চার্জশিটে নারাজি আবেদন করলে আদালত তা গ্রহণ করে ৩রা মে শুনানি করে ১৭ মে পর্যন্ত মুলতবি করেন। আজ আবার জনাকীর্ণ আদালতে বাদি-বিবাদির আইনজীবীদের যুক্তিতর্ক উপস্থাপনের পর নারাজি আবেদন গ্রহণ করে সবাইকে মামলায় অন্তর্ভুক্ত রেখে সুষ্ঠু ও অধিকতর তদন্তের জন্য পি,বি,আই,কে দায়িত্ব অর্পণ করেন বিজ্ঞ আদালত।  ইতিপূর্বে নিহত শাহারুলের পিতা ইসাক মিয়া বাদির প্রতি প্রশ্ন তুলে নিজে পক্ষভুক্ত হওয়ার দরখাস্ত করেছিলেন! কিন্ততু গতকাল বাদির নারাজি দরখাস্তের প্রতি সমর্থনন জানিয়ে কোর্টে উপস্থিত হয়ে ১৪ জন অভিযুক্তকে মামলা থেকে বাদ না দিতে আদালতে বলেন  টেলিফোনে গ্লোবাল সিলেট কে উপরোক্ত তথ্য নিশ্চিত করেন বাদি পক্ষের আইনজীবী এড.মাসুক আলম। উল্লেখ্য গত বছরের ১৭ জানুয়ারি কুলঞ্জ ইউপির জারলিয়া ঘোড়া মারা সাতকানিয়া বিলের মালিকানা দ্বন্দ্বে যুবলীগ নেতা একরার গ্রুপের সাথে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আহাদ মিয়ার গ্রুপের সাথে রক্তক্ষয়ী সংঘর্ষে প্রাণ হারান ৩জন সাধারণ গ্রামবাসী।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :1636 বার!

JS security