দিরাইয়ে জীবন দাস হত্যাকান্ডের আসামী শ্রীমঙ্গল থেকে- গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টারঃ- সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার কুলঞ্জ ইউনিয়নের বোয়ালিয়া গ্রামের জয়কৃষ্ণ দাসের ছেলে জীবন দাসকে (২৮) পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। বিগত ২৬ মে গ্রামের বাড়ি বোয়ালিয়া বাজার থেকে ডেকে নিয়ে জীবন দাসকে হত্যা করে। পরে ব্যবসায়ী জীবন দাসের লাশ নদীতে ফেলে দেয়া হয়। বুধবার (১০ জুলাই) ঘাতক মনির জীবন দাস হত্যাকান্ডে জড়িত ছিল  বলে আদালতে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছেন। জানিয়েছেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই ইসমাইল আলী। মনির জীবন দাস হত্যা মামলার প্রধান আসামী রাজনের সকল কুকর্মের সহযোগী। সে দিরাই উপজেলার ধাইপুর গ্রামের সামছুৃ মিয়ার ছেলে।

দিরাই থানার অফিসার ইনচার্জ কে এম নজরুল তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে, তাহার দিক নির্দেশনায় এসআই মো: ইসমাইল হোসেনের নেতৃত্বে শ্রীমঙ্গল থানার এসআই কাশি চন্দ্র শর্মা্র সহযোগীতায় গত (৮ জুলাই) সোমবার সন্ধ্যায় শ্রীমঙ্গল থানার মির্জাপুর বাজার থেকে আসামী মনিরকে গ্রেফতার করে দিরাই থানায় নিয়ে আসা হয়। জীবনদাস হত্যাকান্ডের বিষয়ে ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের পর ঘাতক মনিরকে আদালতে প্রেরন করা হয় ।

পুলিশ সুত্রে জানাযায়, নারী সংক্রান্ত বিরোধের কারণেই জীবন দাস হত্যাকান্ডটি ঘটে।  

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :210 বার!

error: Content is protected !!
JS security