ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন, চুড়ান্ত আ.লীগ ও আল ইসলাহ প্রার্থী- বিএনপির ধোঁয়াশা:

মুহাম্মদ হাবিলুর রহমান জুয়েল, ফেঞ্চুগঞ্জ থেকেঃ- দীর্ঘ জল্পনা কল্পনার পর আবারও অনুষ্ঠিত হবে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। এর পূর্বে বারবার বন্ধ হয়েছিল উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। সর্বশেষ নির্বাচনের তফসিল ঘোষণার পর মাঠে সক্রিয় ছিল বিএনপি। তাদের প্রার্থী ছিলেন বর্তমান ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সহ-সভাপতি ওহিদুজ্জামান ছুফি চৌধুরী। আর নিবন্ধন বাতিল হওয়া জামায়াতের প্রার্থী ছিলেন বর্তমান উপজেলা চেয়ারম্যান সাইফুল্লাহ আল হুসাইন। কিন্তু এবার তিনি তার দলের সিদ্বান্তের কারনে নির্বাচনে যাচ্ছেন না বলে জানা যায়। কিন্তু বিএনপি নির্বাচনে আসা না আসা নির্ভর করছে দলের চুড়ান্ত সিদ্বান্তের উপর। অপেক্ষায় রয়েছেন বিএনপি সমর্থকেরা। এবারের ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে বিএনপি থেকে সম্ভাব্য (যদি নির্বাচনে সিদ্বান্ত আসে) চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে রয়েছেন ওহিদুজ্জামান ছুফি চৌধুরী ও যুক্তরাজ্য বিএনপি নেতা হারুন আহমদ চৌধুরী। এদিকে চুড়ান্ত করেছে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ তাদের মনোনিত প্রার্থী সাবেক ছাত্রলীগ নেতা শাহ মুজিবুর রহমান জকন ও বাংলাদেশ আনজুমানে আল ইসলাহ মনোনীত প্রার্থী অধ্যক্ষ মাওলানা হারুনুর রশীদ। এদের মধ্যে আওয়ামিলীগ প্রার্থী একজন জনপ্রিয় সাংবাদিক আবার আল ইসলাহ প্রার্থী ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা শিক্ষক সমিতির সাধারণ সম্পাদক। তাই এখানেই হবে সবচেয়ে বড় লড়াই বলে মনে করছেন সাধারণ ভোটাররা। নির্বাচনকে সামনে রেখে ইতমধ্যে মাঠে নেমেছেন আওয়ামিলীগ ও আল ইসলাহ প্রার্থী দুজনই। তবে মাঠে দেখা নেই অন্য কোন প্রার্থীর। অন্যদিকে বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে আসতে পারেন আওয়ামিলীগের আরেক নেতা নুরুল ইসলাম। তিনিও মোটামুটি ভাল অবস্থানেই রয়েছেন। উল্লেখ্য আগামী ১৮ মার্চ অনুষ্ঠিত হবে ফেঞ্চুগঞ্জ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন। অন্যদিকে ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী হিসেবে মাঠে নেমেছেন তালামীযের সিলেট জেলা পূর্ব সভাপতি মুহাম্মদ আব্দুল খালিক রুহিল শাহ সহ বেশ কয়েকজন তরুন প্রার্থী। তাই সেখানেই হবে তরুণদের মূল পরিক্ষা।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :616 বার!

JS security