বানিয়াচংয়ে ক্রিকেট খেলা নিয়ে দুই গ্রামবাসীর সংঘর্ষ, আহত ৫০

বানিয়াচং প্রতিনিধি:- হবিগঞ্জের বানিয়াচং উপজেলায় ক্রিকেট খেলা নিয়ে তর্কাতর্কির পর সংঘর্ষে জড়িয়েছে দুটি গ্রামের বাসিন্দারা। এতে অর্ধশতাধিক ব্যক্তি আহত হয়েছেন। 

গতকাল শনিবার রাতে নন্দীপাড়ার বোয়ালিয়া  হাটি ও দেওয়ান দিঘিরপাড় গ্রামবাসীর মধ্যে এই সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। ঘণ্টাব্যাপী ধরে চলা সংঘর্ষে বড়বাজার এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়।

এলাকাবাসী ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা যায়, উপজেলার সদরের চতুরঙ্গরায়ের পাড়া ও নন্দীপাড়া বোয়ালিহাটির দুই দল কিশোরের মধ্যে ক্রিকেট খেলাকে কেন্দ্র করে গত শুক্রবার ঝগড়া হয়। এর জেরে গতকাল শনিবার রাত আটটার দিকে বড়বাজার এলাকায় দুই গ্রামের লোকজন সংঘর্ষে জড়ান। এক ঘণ্টা ধরে চলা এই সংঘর্ষে ওই এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়।

খবর পেয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বানিয়াচং সার্কেল) শেখ মো. সেলিম, বানিয়াচং থানার ওসি রঞ্জন কুমার সামন্তসহ বিপুল দাঙ্গা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালায়। তাদের সহযোগিতা করেন স্থানীয় নেতৃবৃন্দ। পুলিশ ও নেতৃবৃন্দের ঘণ্টাব্যাপী চেষ্টায় সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণে আসে। ঘটনার পরপরই সেখানে ছুটে যান উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মামুন খন্দকার।

ওসি রঞ্জন কুমার সামন্ত জানান, সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণে আনার জন্য পুলিশ ৬৭টি রাবার বুলেট ও ১০ রাউন্ড টিয়ারশেল নিক্ষেপ করে। সংঘর্ষে দুই পক্ষের ইটপাটকেল নিক্ষেপে বাজারের অনেক দোকান ও নিকটবর্তী ঘরবাড়ি ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

আহতদের মধ্যে বেশ কয়েকজনের নাম জানা গেছে। তারা হলেন, আকরাম, আনোয়ার, মুহাদ্দিস, সায়েল, লিটন, টিটু, হৃদয়। এদের মধ্যে মুহাদ্দিসের অবস্থা বেশি খারাপ হওয়ায় তাকে সিলেট এম এ জি ওসমানী হাসপাতালে ভর্তির জন্য পাঠানো হয়। বাকিদের স্থানীয় হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শেখ সেলিম জানান, যেকোন ধরনের পরিস্থিতি এড়াতে থানা পুলিশ সতর্ক অবস্থায় রয়েছে।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :100 বার!

error: Content is protected !!
JS security