রোহিঙ্গা ক্যাম্পে ভয়াবহ সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধ ১৩

গ্লোবাল ডেস্কঃ- কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের একটি রোহিঙ্গা শিবিরে চাঁদাবাজি ও আধিপত্য বিস্তার নিয়ে ২ রোহিঙ্গা গ্রুপের মধ্যে সংঘর্ষ হয়েছে। এ ঘটনায় ১৩ জন রোহিঙ্গা গুলিবিদ্ধ ও ৩৩ জন আহত হয়েছেন।

সোমবার রাত সাড়ে ৮টার দিকে নয়াপাড়া ক্যাম্পের ‘ই’ ও ‘সি’ ব্লকে এ ঘটনা ঘটে।

আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসার পর গুলিবিদ্ধ ৯ জনকে জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। জানা গেছে তাদের মধ্যে ৪ জনের অবস্থা আশঙ্কাজনক।

জানা গেছে, জকির ও আমান উল্লাহর নেতৃত্বে রাতে একদল ডাকাত ‘ই’ ব্লকের কাপড় ব্যবসায়ী নুর নবীর কাছে চাঁদা দাবি করতে যায়। এতে উভয়পক্ষের মধ্যে বাকবিতণ্ডা হয়। এসময় রোহিঙ্গারা ডাকাত দলকে ঘেরাও করে।

একপর্যায়ে জকির গ্রুপের প্রতিপক্ষ সালমান শাহ গ্রুপ ও খাইরুল গ্রুপ রোহিঙ্গাদের সঙ্গে যোগ দেয়। অবস্থা বেগতিক দেখে জাকির গ্রুপ গুলিবর্ষণ করতে থাকে। তারা অন্তত ৪০-৫০ রাউন্ড গুলি করে। এতে ১৩ জন গুলিবিদ্ধ হন বলে জানা গেছে। পরে খবর পেয়ে র‌্যাব ও পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়।

টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ জানান, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। ডাকাতদের আটকের জন্য পুলিশ ও র‍্যাবের অভিযান চলছে বলেও জানান তিনি।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :232 বার!

JS security