শাল্লায় ছাত্রলীগ নেতা পলাশ সরকার পল্টুকে আসামি করে মামলা দায়ের, জামিন লাভ

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি:-
মিহির রঞ্জন দাসের দায়ের করা মামলায় আজ সুনামগঞ্জ কোর্ট থেকে জামিন নিলেন সুনামগঞ্জ জেলা ছাত্রলীগ নেতা পলাশ সরকার পল্টু।
প্রসঙ্গত গত ২৩ এপ্রিল শাল্লা উপজেলায় জেলা ছাত্রলীগ নেতা পলাশ সরকার পল্টু ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সহ সভাপতি মিহির রঞ্জন দাসের মধ্যে মারামারির ঘটনায় মামলা দায়ের করা হয়েছে।
মিহির দাসের পিতা চানসোনা দাস বাদি হয়ে গতকাল শাল্লা থানায় মামলাটি দায়ের করেন।মামলা নং -১।মামলায় ছাত্রলীগ নেতা পলাশ সরকার পল্টু ও স্থানীয় ব্যাবসায়ী বুবাই সরকার সহ অজ্ঞাতনামা আরও ৩/৪ জন ক আসামী করা হয়।মামলার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন শাল্লা থানার ওসি দেলোয়ার হোসেন।

উল্ল্যেখ্য গত ২৩ এপ্রিল পূর্ব শত্রুতার জেরধরে শাল্লা উপজেলা সদরে জেলা পরিষদ ডাক বাংলার সামনে পলাশ সরকার পল্টু ও মিহির রঞ্জন দাসের মধ্যে মারামারি হলে মিহির রঞ্জন দাস আহত হয়।পরে বিষয়টি স্থানিয় ভাবে সমাধানের উদ্দ্যোগ নিলেও স্থানিয়রা ব্যার্থ হয় পরে বিষয়টি মামলায় গড়ায়।

এবিষয়ে জেলা ছাত্রলীগ নেতা পলাশ সরকার পল্টুর কাছে টেলিফোনে জানতে চাইলে তিনি বলেন মিহির আমার ছোট ভাই তাকে আমি মারিনি একটা বিষয়ে তাকে আমি শাষণ করেছি কিন্ত কিছু লোকের উস্কানিতে সামান্য বিষয়ে সে মামলা করেছে আওয়ামীলীগ সভাপতি – সেক্রেটারিও চেষ্টা করেছেন ঘটনা নিষ্পত্তি করতে।

এবিষয়ে মিহির রঞ্জন দাসের সাথে বার বার মোবাইলে যোগাযোগ করে হলে তিনি ফোন ধরেননি।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :370 বার!

JS security