সুনামগঞ্জের দিরাইয়ের পেরুয়া গ্রামে ৭১ সালে গণহত্যা মামলার অন্যতম আসামী- গ্রেফতার

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধিঃ- সুনামগঞ্জের দিরাই উপজেলার চরন্নারচর ইউনিয়নের পেরুয়া গ্রামে ১৯৭১ সালে গণহত্যা মামলায় মানবতাবিরোধী অপরাধের দায়ে মামলার এজাহারভুক্ত আসামীকে আটক করেছে পুলিশ। গ্রেফতারকৃত ব্যক্তির নাম মোঃআব্দুর রশিদ। সে উপজেলার চরন্নারচর ইউনিয়নের শ্যামরচর গ্রামের মৃত সুরুজ আলীর ছেলে। আজ সোমবার রাত ৯টায় দিরাই থানা অফিসার ইনচার্জ মোস্তফা কামাল ও শাল্লা থানা অফিসার ইনচার্জ আশরাফুল ইসলামের নেতৃত্বে একদল পুলিশ দিরাই উপজেলার চরন্নারচর ইউনিয়নের শ্যামারচর বাজার সংলগ্ন পার্শবর্তী শাল্লা থানার আটগাঁও গ্রাম থেকে তাকে গ্রেফতার করে দিরাই থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। ১৯৭১ সালে স্বাধীনতা সংগ্রামের সময় ঐ সমস্ত মানবতা বিরোধী রাজাকার আলবদররা পরাজিত শক্রু পাকিস্থানীদের পক্ষ অবলম্বন করে তৎবকালীন সময়ে মুক্তিকামী মানুষজনের ধনসম্পদ  লুটপাঠ,অগ্নিসংযোগসহ ধর্ষনের মতো মানবতা বিরোধী অপরাধ সংগঠিত করে। বিশেষ করে হিন্দুদের ধনসম্পদ লুটপাঠসহ হিন্দু নারীদের ধর্ষন ধর্মান্তরিত করা সহ দেশ ত্যাগে বাধ্য করা হয়। এ ব্যাপারে দিরাই থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ মোস্তফা কামাল আব্দুর রশিদ গ্রেফতারের বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, গ্রেফতারকৃত আব্দুর রশিদ একাত্তরের মানবতাবিরোধী অপরাধের মামলার গ্রেফতারী পরোয়ানাভুক্ত পলাতক আসামী ছিল। তাকে ব্যাপক জিঞ্জাসাবাদ করা হবে।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :399 বার!

JS security