বাঁশঝাড় থেকে শিশুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

হবিগঞ্জ প্রতিনিধিঃ-

হবিগঞ্জের মাধবপুরে বাঁশঝাড়ে লুঙ্গী দিয়ে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় বাদশা মিয়া (১১) নামে এক শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মরদেহ উদ্বার করে ময়নাতদন্তের জন্য শুক্রবার হবিগঞ্জ সদর আধুনিক হাসপাতালে প্রেরণ করে। বাদশা মিয়া মাধবপুর উপজেলার বাঘাসুরা গ্রামের মো. শাহ আলম চৌধুরীর ছেলে।

মাধবপুর থানার পরির্দশক (তদন্ত) গোলাম কিবরিয়া হাসান জানান, শিশু বাদশা মিয়ার বাবা মা মৌলভীবাজারে নির্মাণ শ্রমিকের কাজ করে। বাদশা মিয়াকে বাঘাসুরা গ্রামে নানী মমিনা খাতুনের কাছে রেখে যান। বাদশা বাড়ির আশপাশে ঘুরে বেড়াত। তার দুরন্তপনায় প্রতিবেশীরা বিরক্ত হত। এনিয়ে প্রায়ই নানীর কাছে বিচার প্রার্থী হতেন অনেকই। নানী শাসন করতেন। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় বাড়ির রান্না ঘরের পাশের বাঁশঝাড়ে পুরাতন লুঙ্গী দিয়ে বাঁশের সঙ্গে গলায় ফাঁস লাগিয়ে ঝুলা অবস্থায় বাদশা মিয়ার লাশ পাওয়া যায়। এঅবস্থায় দেখে তার নানী মমিনা খাতুন গলার ফাঁস কেটে মাটিতে নামান।

খবর পেয়ে রাতে সিনিয়ন সহকারী পুলিশ সুপার মাধবপুর সার্কেল মহসীন আল মুরাদ ও মাধবপুর থানার পুলিশ পরিদর্শক গোলাম কিবরিয়া হাসানসহ পুলিশ ঘটনাস্থলে যান। তারা মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হবিগঞ্জ আধুনিক সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেন। ময়নাতদন্ত শেষে বাদশা মিয়ার লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়।

মাধবপুর থানার ওসি মুহাম্মদ আব্দুর রাজ্জাক বলেন, এ বিষয়ে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে। তবে প্রাথমিকভাবে ধারণা এটি আত্নহত্যা।

....সংবাদটি সম্পর্কে মন্তব্য করুন

মন্তব্য

সংবাদটি পড়া হয়েছে :110 বার!

JS security