দূর্ঘটনা

দিরাইয়ে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি

দিরাইয়ে ভয়াবহ অগ্নিকান্ডে কোটি টাকার ক্ষয়ক্ষতি

  সুনামগঞ্জের দিরাইয়ে ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। শনিবার দিবাগত রাত সাড়ে ৯ টার দিকে উপজেলার রফিনগর ইউনিয়নের বাংলাবাজারে এ অগ্নিকাণ্ডের ঘটনাটি ঘটে। এতে ৮টি দোকান ঘর পুড়ে আনুমানিক ২ কোটি টাকার মালামাল ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে বলে জানান বাজারের ব্যবসায়ীরা। ব্যবসায়ীরা আরও জানান শনিবার রাত সাড়ে ৯ টার দিকে বাজার মসজিদ সংলগ্ন মার্কেটে আগুন দেখতে পাই, আমরা ব্যবসায়ীরা আগুন নেভানোর চেষ্টা করি কিন্তু হঠাৎ করে আশপাশের দোকানগুলোতে আগুন ছড়িয়ে পড়ে, আগুনের লেলিহান শিখা দেখে পাশ্ববর্তী বিভিন্ন গ্রাম থেকে মানুষ বাজারে এসে প্রানপণ চেষ্টা করে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন, তবে শেষ রক্ষা হয়নি এর মধ্যেই বড় বড় ৮ টি দোকান ঘরসহ মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়। রফিনগর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রেজুয়ান খাঁন জানান, দিরাই উপজেলার সবচেয়ে বড় বাজার হচ্ছে বাংলাবাজার। বাজারে বিভিন্ন এলাকার ব্যবসায়ীরা এসে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান গড়
দিরাইয়ে গ্রাম্য বাজারে ঢিলেঢালা লকডাউন, সেলুনে প্রতিপক্ষের ছুরির আঘাতে এক যুবক খুন

দিরাইয়ে গ্রাম্য বাজারে ঢিলেঢালা লকডাউন, সেলুনে প্রতিপক্ষের ছুরির আঘাতে এক যুবক খুন

দিরাই প্রতিনিধি:  সরকারের কঠোর লকডাউনের মাঝেও সুনামগঞ্জের দিরাইয়ের গ্রাম্য বাজারগুলতে কোন লকডাউনের বালাই নেই। পূর্ব শত্রুতার জের ধরে সেলুন দোকানে চুল কাটতে গিয়ে প্রতিপক্ষের ছুরি আঘাতে এক যুবক খুন হয়েছে। সোমবার সকাল ১১ ঘটিকায় উপজেলার ধল বাজারে এ ঘটনা ঘটে। নিহত ব্যাক্তির নাম লেচু মিয়া(৩২)। তিনি উপজেলার ভাটিধল গ্রামের মৃত আব্দুল হামিদ এর ছেল। তাকে হত্যা করেছে একই গ্রামের আব্দুস শহীদের ছেলে বখাটে জেন্টু । স্হানীয় এলাকা বাসী  জানান, প্রতিদিনের মতো আজও ছিল ধল বাজারে দোকানপাঠ খোলা। লকডাউনের কোন প্রভাব নেই। ক্রেতা-বিক্রেতার স্বাস্হ্য বিধি মানার কোন তোয়াক্কা নেই। রেষ্টুরেন্ট, সেলুন(চুলকাটার)সহ সকল দোকানপাঠে রয়েছে ক্রেতাদের ভীড়। হাওরাঞ্চলের বাজার হওয়ায় এখানে প্রশাসনের কোন নজরধারি নেই। নিহত লেচু মিয়া চুল কাটতে এ বাজারের রাজন পালের সেলুন দোকানে বসেন। এ সময়ে হঠাৎ করে প্রতিপক্ষ জেন্টু ছুর
‘আমার বউ-মেয়ে সব শেষ’, হাসপাতালে যুবকের আহাজারি

‘আমার বউ-মেয়ে সব শেষ’, হাসপাতালে যুবকের আহাজারি

সংবাদদাতা: রাজধানীর মগবাজারের ওয়্যারলেস গেট এলাকায় ভয়াবহ বিস্ফোরণে অন্তত সাতজন নিহত হয়েছেন। আহত হয়েছেন আরও অনেকে। রোববার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে ওই বিস্ফোরণের পর আহত অনেককেই উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। খবর পেয়ে হাসপাতালে স্বজনরা ছুটে আসেন। রাতে হাসপাতালের জরুরি বিভাগে মেঝেতে বসে হাউমাউ করে কাঁদতে দেখা যায় মো. সুজন নামের এক যুবককে। তার গগনবিদারী কান্নায় আকাশ বাতাস ভারী হয়ে উঠে। এ সময় ফোনে তিনি বারবার বলছিলেন, ‘আমার বউ-মেয়ে সব শেষ। আমার আর কেউ নাই রে, তোরা কে কোথায় আছোস হাসপাতালে আয়।’রোববার সন্ধ্যায় ঢাকার মগবাজারে ভবন বিস্ফোরণের ঘটনায় সুজনের স্ত্রী জান্নাত বেগম (২৩) ও নয় মাসের মেয়ে সুবহানা নিহত হয়েছেন। স্ত্রী-সন্তানকে হারিয়ে দিশেহারা সুজন সাংবাদিকদের বলেন, সন্ধ্যায় মেয়ে সুবহানা আর ১৩ বছরের ভাই রাব্বিকে নিয়ে মগবাজার আড়ংয়ের উল্টো দিকে শর্মা হাউজে
সংসদ সচিবালয় কোয়ার্টারে সুন্দরী ছাত্রলীগ নেত্রীর ঝুলন্ত লাশ

সংসদ সচিবালয় কোয়ার্টারে সুন্দরী ছাত্রলীগ নেত্রীর ঝুলন্ত লাশ

  ঢাকা সংবাদদাতা: রাজধানীর আগারগাঁয়ে সংসদ সচিবালয় কোয়ার্টার থেকে এক ছাত্রলীগ নেত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।তার নাম নুসরাত জাহান (২৮)। শনিবার বিকালে জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরে প্রতিবেশীদের ফোন পেয়ে পুলিশ বি-২ নম্বর কোয়ার্টারে গিয়ে বাসার দরজা ভেঙে তার লাশ উদ্ধার করে। ঘটনার পর থেকে নুসরাতের স্বামী মামুন মিল্লাত পলাতক রয়েছেন। মামুন মিল্লাত নিজেকে পুলিশ কর্মকর্তা পরিচয়ে নুসরাতকে নিয়ে ওই কোয়ার্টারে সাবলেটে বসবাস করে আসছিলেন। পুলিশ জানায়, নিহত নুসরাত ছিলেন উপজাতি। তার বাড়ি খাগড়াছড়ি জেলায়।ছিলেন জেলা ছাত্রলীগের নেত্রী। মামুন মিল্লাতকে বিয়ের পর ধর্মান্তরিত হয়ে মুসলিম হন নুসরাত। নুসরাত জাহান ও তার স্বামী মামুন মিল্লাত। ছবি: সংগৃহীত নুসরাত জাহান ও তার স্বামী মামুন মিল্লাত। ছবি: সংগৃহীত নুসরাতের স্বজনদের উদ্ধৃত করে পুলিশ জানায়, নুসরাত ২০১৯ সালে মামুন মিল্লাতকে বিয়ে করেন
শরীরে মৃত্যুর কারণ লিখে গৃহবধূর আত্মহত্যা, স্বামী গ্রেফতার

শরীরে মৃত্যুর কারণ লিখে গৃহবধূর আত্মহত্যা, স্বামী গ্রেফতার

বরিশালের আগৈলঝাড়া উপজেলার রামানন্দেরআক গ্রামে স্বামী ভাসুর ও ভাসুর পত্নীর নির্যাতন সইতে না পেরে বিষপানে টুম্পা অধিকারী নামের এক গৃহবধূর আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে। আত্মহত্যার আগে নিজের দুই পায়ে কলম দিয়ে মৃত্যুর কারণ ও দায়ী ব্যক্তি তার স্বামী, ভাসুর ও ভাসুরের স্ত্রীর নাম লিখে রেখে গেছে অভাগা গৃহবধূ টুম্পা। এঘটনায় আত্মহত্যার প্ররোচনার অভিযোগে টুম্পার বড় বোন বাদি হয়ে থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ অভিযুক্ত স্বামী স্বপন মণ্ডলকে গ্রেফতার করেছে। থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. গোলাম ছরোয়ার এজাহারের বরাত দিয়ে জানান, মাদারীপুর জেলার ডাসার থানার নবগ্রাম এলাকার বাসিন্দা মৃত বঙ্কিম মণ্ডলের ছেলে স্বপন মণ্ডলের (৪২) সাথে ১১ বছর পূর্বে টুম্পার (৪০) বিয়ে হয়। বিয়ের পরে স্বামী, স্বামীর ভাই ও ভাইয়ের স্ত্রী শারীরিক ও মানসিক নির্যাতনের কারণে ৭/৮বছর আগে স্বপন তার বাবার বাড়ি ছেড়ে স্ত্রী টুম্পাকে নিয়ে আগৈলঝাড়া
বিমান দুর্ঘটনায় টারজান অভিনেতা সহ নিহত ৭

বিমান দুর্ঘটনায় টারজান অভিনেতা সহ নিহত ৭

বিনোদন ডেস্ক: যুক্তরাষ্ট্রে এক বিমান দুর্ঘটনায় ‘টারজান’ ছবির বিখ্যাত অভিনেতা জো লারা স্ত্রীসহ নিহত হয়েছেন। এতে মোট ৭ জন যাত্রী মারা গেছেন। বার্তা সংস্থা এএফপি এ খবর দিয়ে বলছে, তাদেরকে বহনকারী বিমানটি যুক্তরাষ্ট্রের নাশভিলে শহরের একটি লেকের কাছে বিধ্বস্ত হয়। শনিবার স্থানীয় সময় সকাল ১১টার দিকে এ ঘটনা ঘটে। এর আগে ছোট আকারের এই জেট বিমানটি আরোহীদের নিয়ে টিনেসি রাজ্যের স্মিরনা থেকে উড্ডয়ন করে। এর যাওয়ার কথা ছিল ফ্লোরিডার পাম বিচে। কিন্তু নাশভিলের প্রায় ১২ মাইল দক্ষিণে পারসি প্রিস্ট লেকে এটি বিধ্বস্ত হয়। সিএনএন বলেছে, ফেডারেল এভিয়েশন এডমিনিস্ট্রেশন নিশ্চিত করেছে, বিমানের মোট ৭ জন আরোহী নিহত হয়েছেন। উদ্ধার অভিযানে নেতৃত্ব দেয়া কমান্ডার ক্যাপ্টেন যোশুয়া স্যান্ডার্স সংবাদ সম্মেলনে বলেছেন, আমরা আর কোনো জীবিত মানুষের সন্ধান এখন পাবো না। রোববার বিকেলে আরসিএফআর ফেসবুকে দেয়া পোস্ট
কানাডায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি নিহত

কানাডায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি নিহত

নিউজ ডেস্ক: কানাডায় সড়ক দুর্ঘটনায় তিন বাংলাদেশি নিহত হয়েছেন। কানাডার স্থানীয় সময় বৃহস্পতিবার বিকালে রাজধানী অটোয়া থেকে টরেন্টো যাওয়ার পথে ৪০১ হাইওয়েতে এই দুর্ঘটনা ঘটে। নিহতরা হলেন- বাংলাদেশি কানাডিয়ান মনিরুজ্জামান বিজয়, তার শাশুড়ি এবং প্রিমিয়াম সুইটসের অন্যতম কারিগর লিয়াকত হোসেন। মনিরুজ্জামান বিজয় চিকিৎসাধীন অবস্থায় সানিব্রুক হাসপাতালে আজ মারা যান। বাকি দুজন গতকালই ঘটনাস্থলেই মারা যান। উল্লেখ্য, মনিরুজ্জামান বিজয় বাংলাদেশ ও কানাডার প্রসিদ্ধ প্রিমিয়াম সুইটসের কর্ণধার এবং বাংলাদেশ বিজনেস চেম্বার অব কানাডার প্রেসিডেন্ট এইচ এম ইকবালের ছোটভাই। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তাদের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে কানাডার বাংলাদেশি কমিউনিটিতে শোকের ছায়া নেমে আসে।
প্রবাসী ভাইয়ের লাশ নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না ছোট ভাইয়ের

প্রবাসী ভাইয়ের লাশ নিয়ে বাড়ি ফেরা হলো না ছোট ভাইয়ের

  মৌলভীবাজারের কুলাউড়া উপজেলার কাদিপুর ইউনিয়নের সুলতানপুর গ্রামে একটি প্রাইভেট কার নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা লেগে আসুক আহমদ (৩৯) নামের এক যুবক নিহত হয়েছেন।  মঙ্গলবার (১১ মে) সকাল ৭টার দিকে দুর্ঘটনায় নিহত হন তিনি। আসুক আহমদ জুড়ী উপজেলার বেলাগাঁও গ্রামের মৃত ইদ্রিস আলীর ছেলে।  পারিবারিক ও পুলিশ সূত্রে জানা যায়, ঢাকা শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে দুবাই প্রবাসী বড় ভাই মাসুক আহমদকে আনতে যান ছোট ভাই আসুক আহমদ। মঙ্গলবার সকাল ৭টার দিকে প্রাইভেটকার নিয়ে ঢাকা থেকে জুড়ী ফেরার পথে কুলাউড়ার কাদিপুর ইউনিয়নের সুলতানপুর এলাকায় গাড়িটি পৌঁছালে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে গাছের সাথে ধাক্কা লেগে নিচে পড়ে যায়। পরে স্থানীয়রা মাসুক আহমদ, আসুক আহমদ ও গাড়ি চালককে উদ্ধার করে মৌলভীবাজার হাসপাতালে পাঠালে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক আসুক আহমদকে মৃত ঘোষণা করেন। দুর্ঘটনার বিষয়টি ন
সুনামগঞ্জে প্রাইভেট কারটি বাসস্ট্যান্ডে থামতেই আগুন ধরে পুড়ে গেল

সুনামগঞ্জে প্রাইভেট কারটি বাসস্ট্যান্ডে থামতেই আগুন ধরে পুড়ে গেল

সুনামগঞ্জ শহরের পুরাতন বাসস্ট্যান্ড এলাকায়  একটি প্রাইভেট কারে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে । সোমবার  ( ১০ মে ) বিকেলে  সিলেট থেকে সুনামগঞ্জ শহরের পুরাতন বাসস্ট্যান্ড এলাকায় যাত্রী নিয়ে আসা একটি প্রাইভেট কার আগুনে লেগে পুরো প্রাইভেট কারটি পুড়ে গেছে । গাড়ি থেকে ধোঁয়া বের হতেই যাত্রী ও চালক নেমে যাওয়ায় প্রাণে বাঁচেন তাঁরা। পরে ফায়ার সার্ভিসের লোকজন গিয়ে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনেন। গাড়ির চালক ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, সিলেটের আম্বরখানা থেকে দুজন যাত্রী ও একটি প্রতিষ্ঠানের কিছু পণ্য নিয়ে প্রাইভেট কারটি বিকেলে সুনামগঞ্জ পৌর শহরের পুরাতন বাসস্ট্যান্ডে আসে। গাড়িটি থামার পরই সেটির ভেতর থেকে কালো ধোঁয়া বের হতে থাকে। সঙ্গে সঙ্গে যাত্রী ও চালক গাড়ি থেকে বের হন। এরপরই গাড়িতে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে । পরে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে আগুন নেভান। তার আগেই গাড়িটি পুড়ে যায়। গাড়ির চাল
খায়রুল হুদা চপল গুরুতর আহত

খায়রুল হুদা চপল গুরুতর আহত

সুনামগঞ্জ থেকে সড়ক পথে ঢাকা যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত হয়েছেন সুনামগঞ্জ সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের আহবায়ক খায়রুল হুদা চপল। এ ঘটনায় কাওসার নামে এক ব্যক্তি নিহত হয়েছেন এবং খায়রুল হুদা চপলের গাড়িচালকসহ তিনজন আহত হন। রোববার রাতে সড়ক পথে ঢাকা যাওয়ার পথেই নরসিংদী জেলায় দুর্ঘটনার শিকার হন তিনি। বর্তমানে তাকে ঢাকার একটি হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। বিষয়টি নিশ্চিত করে খায়রুল হুদা চপলের ব্যাক্তিগত সহকারী অরিন্দম মৈত্র অমিয় বলেন, দুর্ঘটনায় উনার পায়ে গুরুতর আঘাত পেয়েছেন, বর্তমানে ঢাকার একটি হাসপাতালে উনাকে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে। নরসিংদী সদর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বিপ্লব কুমার দত্ত বলেন, সুনামগঞ্জ থেকে রাতে ঢাকার উদ্দেশে রওনা দেন খায়রুল হুদা চপল। সোনাইমুড়ি এলাকায় বিপরীত দিক থেকে আসা প্রাইভেটকারের সঙ্গে তার প্রাইভেটকারের সংঘর্
JS security